ঈদ শুভেচ্ছা বার্তায় যা বলল তালেবান

তালেবানের নেতা মোল্লা হিবতুল্লাহ আখন্দজাদা আফগানিস্তানের সংকট সমাধানে রাজনৈতিক সমাধানের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন।

তোলো নিউজের খবরে বলা হয়েছে, তালেবানের সর্বোচ্চ নেতা এমন এক সময় এই বার্তা দিলেন-যখন আফগানিস্তানে শান্তি ফেরাতে তালেবান ও সরকারের প্রতিনিধিরা কাতারের রাজধানীর দোহায় বৈঠকে বসেছেন।

খবরে বলা হয়, ঈদ বার্তায় তালেবান বিভিন্ন জেলা দখলের কথা স্বীকার করেছে। তবে তারা রাজনৈতিক সমাধান সমর্থন করেন বলেও উল্লেখ করেছেন।

তালেবান নেতা আখন্দজাদা বলেন, আফগানিস্তানে ইসলামি ব্যবস্থা, শান্তি এবং নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠার জন্য আমরা যেকোনো সুযোগ গ্রহণ করব। আমরা সংলাপের মাধ্যমে সমাধান চাই কিন্তু আফগান সরকার শান্তি আলোচনার নামে সময় নষ্ট করছে।

মোল্লা হিবতুল্লাহ বলেন, বহির্বিশ্বের সঙ্গে তালেবান দৃঢ় ও ভালো কূটনৈতিক, অর্থনৈতিক এবং রাজনৈতিক সম্পর্ক চায়। আফগানিস্তানে বসে কোনো গোষ্ঠী প্রতিবেশী কোনো দেশের নিরাপত্তার হুমকি হতে পারবে না। এ সময় তিনি অন্য দেশগুলোকেও আফগানিস্তানের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ না করার আহ্বান জানিয়ে বলেন, তালেবান আফগানিস্তানে দূতবাস, বিনিয়োগকারী ও বিদেশি সংস্থাগুলোকে রক্ষা করতে কাজ করবে।

সংবাদ মাধ্যমের স্বাধীনতার বিষয়ে তালেবানের এই শীর্ষ নেতা বলেন, আমরা আফগানিস্তানের স্বার্থ এবং ইসলামী আইনের মধ্যে থেকে বাক-স্বাধীনতা রক্ষায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। সাংবাদিকদের এই দুইটি বিষয় মাথায় রেখে কাজ করা উচিত।

আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্র ও পশ্চিমা দেশগুলোর সামরিক জোট ন্যাটো সেনা প্রত্যাহার শুরু করেছে। সেনা প্রত্যাহারের কাজ জোরদার করার পর থেকে তালেবান যোদ্ধারা একের পর এক এলাকা নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নিচ্ছেন। গত বুধবার তালেবান আফগানিস্তান-পাকিস্তানের স্পিন বোলডাক সীমান্ত ক্রসিং দখল করার কথা জানিয়েছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *